ইজিবাইক চালকদের ধর্মঘট:যাত্রী সাধারণের ভোগান্তি

চুয়াডাঙ্গা জেলা শহরে ইজবাইক প্রবেশ করতে না দেওয়ায় দামুড়হুদায় ইজিবাইক চালকরা ধর্মঘট করেছে। গতকাল সোমবার সকাল থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত তারা দামুড়হুদা উপজেলা পরিষদ চত্বরে মুক্তমঞ্চের সামনে ধর্মঘট করে।

ইজিবাইক চালকদের ধর্মঘট:যাত্রী সাধারণের ভোগান্তি

এসময় ইজিবাইক চালকরা বলেন, চুয়াডাঙ্গা জেলার সব উপজেলা থেকে ইজিবাইক জেলা শহরে প্রবেশ করতে দিলেও দামুড়হুদা উপজেলার কোনো ইজিবাইক ঢুকতে দিচ্ছে না। যার ফলে আমরা ইজিবাইক চালকরা সহ যাত্রীরা প্রতিনিয়ত ভোগান্তির শিকার হচ্ছি। একটি মহল ইজিবাইক এসোসিয়েশনের নামে এমন মনগড়া নিয়ম তৈরী করে আমাদের কে প্রতিনিয়িত ভোগান্তি করছে। আমরা অনেকে ভাড়ায় চালিত ইজিবাইক চালায় চুয়াডাঙ্গা জেলা শহরে আমাদের কে ঢুকতে না দেওয়ার কারণে আমরা মালিক পক্ষদের কে ভাড়ার টাকা পরিশোধ করতে পারছি না। এছাড়াও আমাদের অনেকে বিভিন্ন এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে ইজিবাইক কিনেছি, স্বাধীন ভাবে গাড়ি চালাতে না পারাই আমরা এনজির ঋণ গুলোও পরিশোধ করতে পারছি না। এবং আমাদের উর্পাজন কমে যাওয়ায় পরিবারে নেমে এসছে অভাব-অনটন। এভাবে চলতে থাকলে আমাদের পরিবার গুলো পথে নেমে যাবে। এ বিষয়ে চুয়াডাঙ্গা জেলা প্রশাসকের সু-দুষ্টি কামনা করেছে ইজিবাইক চালকরা। ভুক্তভোগী যাত্রীরা অভিযোগ করে বলেন, ভেঙ্গে ভেঙ্গে ইজিবাইক চলার কারণে আমাদের কে গুনতে হচ্ছে অতিরিক্ত ভাড়া। বিশেষ করে বাসে যাতায়াত করা যাত্রীদের প্রহাতে হচ্ছে ভোগান্তি। বিশেষ করে মহিলা যাত্রীদের কে বেশি ভোগান্তি প্রহাতে হচ্ছে। অনেকটাই বাধ্য হয়ে অতিরিক্ত ভাড়ায় আমাদের যাতায়াত করতে হচ্ছে। এ বিষয়ে দামুড়হুদা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা দিলারা রহমান বলেন, এটা জেলা প্রশাসক স্যারের সিদ্ধান্ত এক উপজেলা থেকে আর এক উপজেলায় ইজিবাইক প্রবেশ করবে না। তবে অভিযোগ পেয়েছি যে চুয়াডাঙ্গার ইজিবাইক গুলো দামুড়হুদায় আসছে। এবিষয়ে ওসি দামুড়হুদা কে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দিয়েছি।