এমপি জোয়াহেরুলের নামের পাশে যুক্ত হলো বীর মুক্তিযোদ্ধা

মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হলেন টাঙ্গাইল-৮ (সখীপুর-বাসাইল) আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো.জোয়াহেরুল ইসলাম। মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের গেজেট অধিশাখার উপসচিব (গেজেট) রবীন্দ্র নাথ দত্ত স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়। গত ৩ জানুয়ারি উপসচিব স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল আইন অনুযায়ী প্রকৃত বীর মুক্তিযোদ্ধার তালিকা গেজেট প্রকাশ করা হলো। সংসদ সদস্য মো. জোয়াহেরুল ইসলামের মুক্তিযোদ্ধা তালিকার গেজেট নম্বর-৬৯৮৭। মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হওয়ায় সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মো. জোয়াহেরুল ইসলাম বলেন, ‘আমি বঙ্গবন্ধুর ডাকে স্বাধীনতা সংগ্রামে টাঙ্গাইলের পাথরঘাটাসহ কয়েকটি যুদ্ধে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেছি। দীর্ঘদিন পরে হলেও যুদ্ধের স্বীকৃতিস্বরূপ সরকার মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করায় বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞা প্রকাশ করছি। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর সময়ে একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আমি গর্ববোধ করছি।’ তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একজন নিবেদিত কর্মী হিসেবে তার নির্দেশক্রমে নতুন ধারার সখীপুর-বাসাইল উপজেলা গড়ব। একই সঙ্গে, তিনি সবাইকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন। আরিফ উর রহমান টগর/এসআর/জিকেএস

এমপি জোয়াহেরুলের নামের পাশে যুক্ত হলো বীর মুক্তিযোদ্ধা

মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হলেন টাঙ্গাইল-৮ (সখীপুর-বাসাইল) আসনের সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো.জোয়াহেরুল ইসলাম।

মুক্তিযুদ্ধবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের গেজেট অধিশাখার উপসচিব (গেজেট) রবীন্দ্র নাথ দত্ত স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়।

গত ৩ জানুয়ারি উপসচিব স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল আইন অনুযায়ী প্রকৃত বীর মুক্তিযোদ্ধার তালিকা গেজেট প্রকাশ করা হলো। সংসদ সদস্য মো. জোয়াহেরুল ইসলামের মুক্তিযোদ্ধা তালিকার গেজেট নম্বর-৬৯৮৭।

jagonews24

মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত হওয়ায় সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট মো. জোয়াহেরুল ইসলাম বলেন, ‘আমি বঙ্গবন্ধুর ডাকে স্বাধীনতা সংগ্রামে টাঙ্গাইলের পাথরঘাটাসহ কয়েকটি যুদ্ধে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেছি। দীর্ঘদিন পরে হলেও যুদ্ধের স্বীকৃতিস্বরূপ সরকার মুক্তিযোদ্ধা তালিকায় অন্তর্ভুক্ত করায় বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রতি কৃতজ্ঞা প্রকাশ করছি। স্বাধীনতার সুবর্ণ জয়ন্তীর সময়ে একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আমি গর্ববোধ করছি।’

তিনি আরও বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একজন নিবেদিত কর্মী হিসেবে তার নির্দেশক্রমে নতুন ধারার সখীপুর-বাসাইল উপজেলা গড়ব। একই সঙ্গে, তিনি সবাইকে নতুন বছরের শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন জানিয়েছেন।

আরিফ উর রহমান টগর/এসআর/জিকেএস