তীব্র শীতে কাঁপছে চুয়াডাঙ্গা: আজকের তাপমাত্রা ৫.৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস

চুয়াডাঙ্গা আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সামাদুল হক জানান, আজ সোমবার ১ লা ফেব্রুয়ারী চুয়াডাঙ্গায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে ৫.৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস ও সর্বোচ্চ ২৩.২ ডিগ্রী সেলসিয়াস । এটাই জেলার সর্বনিম্ন তাপমাত্রা । জেলার তাপমাত্রা আরো কমতে পারে ।

তীব্র শীতে কাঁপছে চুয়াডাঙ্গা: আজকের তাপমাত্রা ৫.৭ ডিগ্রী সেলসিয়াস

গতকাল  ছিল তাপমাত্রা  ৬.২ ডিগ্রী সেলসিয়াস।  আজ মাঘের ১৮ তারিখ । চলতি মৌসুম শীত বিদায়ের আগে আরেকদফা শৈতপ্রবাহের কবলে পড়েছে সারাদেশের ন্যায় চুয়াডাঙ্গা । এটা এ বছরের তৃতীয় শৈতপ্রবাহ । 
 এদিকে হাড় কাপানো শীতে বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে স্বাভাবিক জীবনযাত্রা। বিশেষকরে ছিন্নমুল ও অসহায় মানুষের দুর্ভোগ বেড়েছে চরমে । আর তীব্র শীত উপেক্ষা করে জীবিকার তাগিদে  কজের সন্ধ্যানে বের হওয়া নিম্ন আয়ের খেটে খাওয়া মানুষ পড়েছে বিপাকে । খড়কুটো জ্বালিয়ে শীত নিবারনের চেষ্টা করছে শীতার্ত মানুষ। 
 চুয়াডাঙ্গা সদর হাসাপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসারডা:  সাজিদ হাসান জানান,অব্যাহত শীতের কারণে হাসপপাতালে সংখ্যা স্বাবাবিক আছে। বিশেষ করে ঠান্ডাজনিত রোগে শিশুদের নিউমোনিয়া ,শ্বাসকষ্ট,ডায়রিয়ারোগীর সংখ্যা কিছুটা বেড়েছে। তিনি আরো জানান ,কলেরা স্যালাইনের কোনো সংকট নেই । পর্যপ্ত স্যালাইন মজুদ আছে।
এদিকে  জেলা প্রশাসক নজরুল ইসলাম সরকার  জানান,চুয়াডাঙ্গা শীতার্ত মানুষের জন্য ত্রাণ ভান্ডার থেকে প্রথমে ২০হাজার ৭০০কম্বল এসেছে। সেটা আমরা শীতার্ত মানুষের মধ্যে বিতরণ করে দিয়েছি। এরপর ত্রাণ তহবিল থেকে প্রত্যেক উপজেলায় ৬ লাখ করে ২৪ লাখ টাকাদেওয়া হয়েছে। স্বস্ব উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তাগণ ঐ টাকা দিয়ে কম্বল কিনে ইতিমধ্যে বিতরণ করেছেন। এছাড়া  বস্ত্রখাত থেকেআসা   ৫ লাখ টাকার শীতবস্ত্র কিনে বিভিন্ন এতিমখানায় ও গরিবদের মধ্যে বিতরণ করা হয়েছে । এাছাড়া চুয়াডাঙ্গা ১ আসনের সংসদ সদস্য সোলায়মান হক জোয়ার্দ্দার ছেলুন মহাদয় তার নিজ তহবিল থেকে৭লাখ টাকার  কম্বল কিনে বিতরণ করেছেন।