দিহানের বাসার দারোয়ান পুলিশ হেফাজতে

রাজধানীর কলাবাগানে মাস্টারমাইন্ড স্কুলের শিক্ষার্থী হত্যা মামলার আসামি ফারদিন ইফতেখারদিহানের বাসার দারোয়ানকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে। তার নাম দুলাল। ঘটনার পর থেকেই তিনি পলাতক ছিলেন বলে জানা গেছে। সোমবার দুপুরে তাকে হেফাজতে নেয়া হয়...

দিহানের বাসার দারোয়ান পুলিশ হেফাজতে

দিহানের বাসার দারোয়ান পুলিশ হেফাজতে

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকাটাইমস

রাজধানীর কলাবাগানে মাস্টারমাইন্ড স্কুলের শিক্ষার্থী হত্যা মামলার আসামি ফারদিন ইফতেখার দিহানের বাসার দারোয়ানকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ হেফাজতে নেয়া হয়েছে। তার নাম দুলাল। ঘটনার পর থেকেই তিনি পলাতক ছিলেন বলে জানা গেছে।

সোমবার দুপুরে তাকে হেফাজতে নেয়া হয় বলে জানান ডিএমপির রমনা বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মো. সাজ্জাদুর রহমান।

তিনি বলেন, দিহানের বাসার দারোয়ান এখন পর্যন্ত আটক বা গ্রেপ্তারও না। ঘটনার পর থেকেই আমরা তাকে খুঁজছিলাম। আজ তাকে কলাবাগানের ডলফিন গলি থেকে তাকে নিয়ে আসা হয়েছে। আমাদের কিছু তথ্য জানার জন্য তাকে খুঁজছিলাম।

গত ৭ জানুয়ারি সকালে বন্ধু দিহানের মোবাইল কল পেয়ে বাসা থেকে বের হন রাজধানীর ধানমন্ডির মাস্টারমাইন্ড স্কুলের ‘ও’ লেভেলের ওই শিক্ষার্থী। এরপর আনুশকাকে কলাবাগানের ডলফিন গলির নিজের বাসায় নিয়ে যান দিহান। ফাঁকা বাসায় শারীরিক সম্পর্কের একপর্যায়ে মেয়েটি অসুস্থ হয়ে পড়লে দিহানসহ চার বন্ধু তাকে ধানমন্ডির আনোয়ার খান মডার্ন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক ছাত্রীকে মৃত ঘোষণা করেন। ধর্ষণের পর অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে তার মৃত্যু হয় বলে জানান চিকিৎসকরা। ঘটনার পর পরই পুলিশ দিহান ও তার তিন বন্ধুকে আটক করে। পরে কলাবাগান থানায় নিহত শিক্ষার্থীর বাবা বাদী হয়ে মামলা করেন। এ মামলার একমাত্র আসামি দিহান বর্তমানে কারাগারে রয়েছেন। গ্রেপ্তারের পর দিহান ১৬৪ ধারায় আদালতে জবানবন্দিও দিয়েছেন।

(ঢাকাটাইমস/১১ জানুয়ারি/এআর/ইএস)

© dhakatimes24.com