প্রেমিককে হত্যা, নার্স গ্রেফতার

হত্যার শিকার রুবেল রানা (২৮) টাঙ্গাইলের কালিহাতি থানার শ্যামশৈল গ্রামের আব্দুল লতিফের ছেলে। প্রেমের সম্পর্কের সুযোগে নগ্ন ভিডিও ধারণের পর সেটি দেখিয়ে ব্ল্যাকমেইল করায় প্রেমিককে হত্যার ঘটনায়, সিরাজগঞ্জ সিআইডি পুলিশ ঢাকার ধামরাই থেকে নার্স লাভলী খাতুনকে আটক করে।

প্রেমিককে হত্যা, নার্স গ্রেফতার
প্রতীকী ছবি

সিরাজগঞ্জ সিআইডির পুলিশ পরিদর্শক নুরে আলম সিদ্দিকী জানান, ২৭ জানুয়ারি বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিমপাড় সিরাজগঞ্জ সদর থানার ইকোপার্কে একটি লাশ পাওয়া যায়। এরপর সিআইডি তদন্ত শুরু করে। আটক লাভলী আদালতে জানান, রুবেল রানার সঙ্গে তার প্রেমের সম্পর্কের এক পর্যায়ে অন্তরঙ্গ সম্পর্ক গড়ে ওঠে। রানার সেই চিত্র মোবাইল ফোনে ধারণ করে তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে প্রতারণা করছিল। তাই নগ্ন ভিডিও উদ্ধারের জন্য ২৬ জানুয়ারি রুবেলকে ডেকে বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিমপাড় ইকোপার্কে নিয়ে আসেন। এক পর্যায়ে রানাকে শারীরিক সম্পর্কের প্রলোভন দেখিয়ে অজ্ঞান করার ইনজেকশন দেয় লাভলী। এরপর রানার দুটি ফোন নিয়ে লাভলী চলে যায়।

পরিদর্শক আরও জানান, অ্যানেসথেসিয়ার অতিরিক্ত মাত্রার কারণে রুবেল রানার মৃত্যু হয়েছে। লাভলীর কাছ থেকে রুবেলের ব্যবহৃত মোবাইল ফোনও উদ্ধার করা হয়েছে।