বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল নির্মাণ হবে বেনাপোল স্থলবন্দর স্টেশনে

যশোরের বেনাপোল স্থলবন্দর রেলওয়ে স্টেশনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল স্থাপন করা হবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক মো. শামছুজ্জামান। তিনি বলেন, ‘বেনাপোলে একটি আধুনিক রেলওয়ে স্টেশন গড়ে তোলা হবে। এই স্টেশনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের একটি ম্যুরাল স্থাপনের পরিকল্পনাও করা হয়েছে।’ রোববার (১০ জানুয়ারি) বেনাপোল রেলওয়ে স্টেশনে প্রধান অতিথি হিসেবে গুডস ইয়ার্ড সম্প্রসারণ কাজের উদ্বোধনকালে তিনি এসব কথা বলেন। রেলওয়ে মহাপরিচালক বলেন, বাংলাদেশ রেলওয়ের উন্নয়ন কাজ দ্রুত সম্প্রসারিত হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর সুদৃষ্টিতে দেশের রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা দিন দিন এগিয়ে যাচ্ছে। কম খরচে রেলে ভারতের সঙ্গে আমদানি-রফতানি কার্যক্রম করা হচ্ছে। তবে বেনাপোল বন্দর রেল স্টেশনে ইয়ার্ড না থাকায় আমদানি বাণিজ্য ব্যহত হচ্ছে। এজন্যই দু’টি গুডস ইয়ার্ড স্থাপন করা হচ্ছে। পরবর্তীতে আরও ইয়ার্ড তৈরি করা হবে। দ্রুত দেশে উন্নতমানের রেল আমদানি করা হবে জানিয়ে মো. শামছুজ্জামান বলেন, দেশের উন্নয়নের জন্য পণ্য সরবরাহ এবং যাত্রী চলাচলে রেলপথের বিকল্প নেই। ট্রেনে পণ্য পরিবহনের ক্ষেত্রে সাশ্রয় হয়। কৃষকদের কথা চিন্তা করে দ্রুত পণ্য পরিবহন ভ্যান বাড়ানো হবে বলেও জানান তিনি। পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক মিহির কান্তি গুহ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বেনাপোল কাস্টমস হাউসের কমিশনার মো. আজিজুর রহমান, বেনাপোল সিএন্ডএফ অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মফিজুর রহমান সজন, বেনাপোল স্থলবন্দরের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক আব্দুল জলিল, উপ-পরিচালক মামুন কবীর তরফদার, রেলওয়ের বিভাগীয় মহাব্যবস্থাপক (পাকশি) শাইদুল ইসলাম, রেলওয়ের প্রধান প্রকৌশলী (রাজশাহী) আবু ফাত্তা মাছুদুর রহমান, যশোর নাগরিক আন্দোলন কমিটির সভাপতি শেখ মাসুদুর রহমান প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পরে মহাপরিচালক মো. শামছুজ্জামান বেনাপোল চেকপোস্টসহ বন্দর এলাকা পরিদর্শন করেন। এছাড়া বেনাপোল সিএন্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশন নেতৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময় করেন তিনি। জামাল হোসেন/এএএইচ

বঙ্গবন্ধুর ম্যুরাল নির্মাণ হবে বেনাপোল স্থলবন্দর স্টেশনে

যশোরের বেনাপোল স্থলবন্দর রেলওয়ে স্টেশনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ম্যুরাল স্থাপন করা হবে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালক মো. শামছুজ্জামান।

তিনি বলেন, ‘বেনাপোলে একটি আধুনিক রেলওয়ে স্টেশন গড়ে তোলা হবে। এই স্টেশনে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের একটি ম্যুরাল স্থাপনের পরিকল্পনাও করা হয়েছে।’

রোববার (১০ জানুয়ারি) বেনাপোল রেলওয়ে স্টেশনে প্রধান অতিথি হিসেবে গুডস ইয়ার্ড সম্প্রসারণ কাজের উদ্বোধনকালে তিনি এসব কথা বলেন।

রেলওয়ে মহাপরিচালক বলেন, বাংলাদেশ রেলওয়ের উন্নয়ন কাজ দ্রুত সম্প্রসারিত হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রীর সুদৃষ্টিতে দেশের রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা দিন দিন এগিয়ে যাচ্ছে। কম খরচে রেলে ভারতের সঙ্গে আমদানি-রফতানি কার্যক্রম করা হচ্ছে। তবে বেনাপোল বন্দর রেল স্টেশনে ইয়ার্ড না থাকায় আমদানি বাণিজ্য ব্যহত হচ্ছে। এজন্যই দু’টি গুডস ইয়ার্ড স্থাপন করা হচ্ছে। পরবর্তীতে আরও ইয়ার্ড তৈরি করা হবে।

দ্রুত দেশে উন্নতমানের রেল আমদানি করা হবে জানিয়ে মো. শামছুজ্জামান বলেন, দেশের উন্নয়নের জন্য পণ্য সরবরাহ এবং যাত্রী চলাচলে রেলপথের বিকল্প নেই। ট্রেনে পণ্য পরিবহনের ক্ষেত্রে সাশ্রয় হয়। কৃষকদের কথা চিন্তা করে দ্রুত পণ্য পরিবহন ভ্যান বাড়ানো হবে বলেও জানান তিনি।

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক মিহির কান্তি গুহ এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে অন্যদের মধ্যে বেনাপোল কাস্টমস হাউসের কমিশনার মো. আজিজুর রহমান, বেনাপোল সিএন্ডএফ অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি মফিজুর রহমান সজন, বেনাপোল স্থলবন্দরের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক আব্দুল জলিল, উপ-পরিচালক মামুন কবীর তরফদার, রেলওয়ের বিভাগীয় মহাব্যবস্থাপক (পাকশি) শাইদুল ইসলাম, রেলওয়ের প্রধান প্রকৌশলী (রাজশাহী) আবু ফাত্তা মাছুদুর রহমান, যশোর নাগরিক আন্দোলন কমিটির সভাপতি শেখ মাসুদুর রহমান প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পরে মহাপরিচালক মো. শামছুজ্জামান বেনাপোল চেকপোস্টসহ বন্দর এলাকা পরিদর্শন করেন। এছাড়া বেনাপোল সিএন্ডএফ এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশন নেতৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময় করেন তিনি।

জামাল হোসেন/এএএইচ