চুয়াডাঙ্গায় ৩টিতে নৌকা, ২টিতে স্বতন্ত্র প্রার্থী চেয়ারম্যান নির্বাচিত

সহিংসতা ছাড়া উৎসব মুখর পরিবেশে শেষ হয়েছে ইউনিয়ন নির্বাচন

চুয়াডাঙ্গার পাঁচটি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে তিনটিতে আওয়ামী লীগ এবং দুটিতে স্বতন্ত্র প্রার্থী বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

 

এরমধ্যে দামুড়হুদা উপজেলার জুড়ানপুর ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের প্রার্থী সোহরাব হোসেন, দামুড়হুদা সদর ইউনিয়নে নৌকার প্রার্থী হযরত আলী, কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী আব্দুল করিম, কুড়ুলগাছি ইউনিয়নে স্বতন্ত্র প্রার্থী কামাল উদ্দিন ও জীবননগর উপজেলার সীমান্ত ইউনিয়নে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকের ইসাবুল ইসলাম মিল্টন বেসরকারিভাবে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হয়েছেন।

 

কোন প্রকার সহিংসতা ছাড়া উৎসব মুখর পরিবেশে শেষ হয়েছে ইউনিয়ন নির্বাচন। বৃহস্পতিবার (১১ নভেম্বর) সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত  ইউনিয়ন পরিষদ দ্বিতীয় ধাপের নির্বাচন শান্তিপূর্ণভাবে সম্পন্ন হয়েছে।

 

এলাকার সাধারণ ভোটাররা জানিয়েছেন সুন্দর পরিবেশে ভোট দিতে পেরে তারা খুশি। অনেক দিন পর  ইতিহাস রচিত হলো। আওয়ামী লীগ সরকারের আমলে এবারই প্রথম শান্তিপূর্ণভাবে ভোট দিতে পেরেছেন বলে অনেকেই পুলকিত মনে জানিয়েছেন।

 

সকাল থেকে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। প্রশাসনের কঠোর অবস্থানের ফলে ভোটাররা তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করতে পেরেছেন। ভোট শুরু থেকে শেষ পর্যন্ত বিজিবি, পুলিশের মোবাইল টিম, আনসার সদস্যরা কেন্দ্রে উপস্থিত ছিলেন। প্রতিটি কেন্দ্রেই পরিদর্শন করেন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট।