৯৭৬৮ বোতল বিদেশি মদ জব্দ করেছে মোংলা কাস্টমস হাউজ

শুল্ক ফাঁকি দিতে মিথ্যা ঘোষণায় চুনা পাথরের পরিবর্তে আনা ৮টি ব্রান্ডের ৯ হাজার ৭৬৮ বোতল মদ জব্দ করেছে মোংলা কাস্টমস হাউজ। মঙ্গলবার (১৬ নভেম্বর) দুপুরে মোংলা সমুদ্র বন্দরের ইয়ার্ডে খালাস না করা একটি কন্টেইনার থেকে এই চালান জব্দ করা হয়।

 

পণ্য খালাসে বন্দর নির্ধারিত ৩০ দিন পার হওয়ার পরও দীর্ঘ সময়ে কন্টেইনারটি খালাস করেনি আমদানিকারক প্রতিষ্ঠান। খালাস না হওয়া এ ধরনের পণ্য নিলামে তোলার জন্য মোংলা বন্দরের ট্রাফিক বিভাগ থেকে কাস্টমসকে জানানো হয়।

পরবর্তীতে মোংলা কাস্টমস হাউজ বন্দরের ২ নম্বর ইয়ার্ডে থাকা কন্টেইনার নীরিক্ষার সময় অবৈধভাবে আনা ওই মদ দেখতে পায়। চুনাপাথর (ক্যালসিয়াম অক্সাইড) ঘোষণা দিয়ে ঢাকার ফাহাদ ট্রেডিং নামের একটি প্রতিষ্ঠান ওই কন্টেইনার আমদানি করে।

 

জানা গেছে, গত মার্চে সিঙ্গাপুরের পতাকাবাহী এমভি কোটারিয়া জাহাজে করে মোংলা বন্দর দিয়ে ওই কন্টেইনারটি আসে।

দুপুর থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত গণনা শেষে ওই কন্টেইনারে থাকা ৮১৪টি পৃথক কার্টুনে বিভিন্ন ব্রান্ডের মোট ৯ হাজার ৭৬৮ বোতল বিদেশি মদ পাওয়া গেছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে এই মদের দাম জানাতে পারেনি কাস্টমস কর্তৃপক্ষ।

 

মোংলা কাস্টমস হাউজের যুগ্ম-কমিশনার মো. মাহফুজ আহম্মেদ বলেন, কন্টেইনারটিতে ভ্যালেন্টাইন, পাসপোর্ট, জ্যাক ড্যনিয়ালসহ মোট ৮টি বিদেশি ব্রান্ডের মদ পাওয়া গেছে। মদের দাম নির্ধারণ চলছে। সব ধরনের প্রক্রিয়া শেষে মোংলা থানায় মামলা দায়ের করা হবে বলে জানান তিনি।