চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে সড়ক দুর্ঘটনায় ছেলে নিহত, বাবা আহত

চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে সড়ক দুর্ঘটনায় ছেলে মানিক হোসেনের মৃত্যু হয়েছে এবং বাবা বাবলুর রহমান গুরুতর আহত হয়েছেন। আজ বুধবার সকাল সাড়ে ৮ টার সময় জীবননগর উপজেলার পাথিলা কৃষি ফার্মের নারকেল বাগানের সামনে প্রধান সড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে।

 

নিহত মানিক হোসেন (১০) ঝিনাইদহ জেলার মহেশপুর উপজেলার স্বরুপপুর ইউনিয়নের পোড়াপাড়া গ্রামের বাবলুর রহমানের ছেলে। অপরদিকে গুরুতর আহত বাবলুর রহমানকে উদ্ধার করে প্রথমে জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স এবং পরবর্তীতে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে।

 

নিহত মানিক হোসেনের লাশ উদ্ধার করে জীবননগর থানায় নেয়া হয়েছে।

 

স্থানীয়রা এবং পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, আজ বুধবার সকাল ৮ টার সময় স্বরুপপুর গ্রামের বাবলুর রহমান (৪০) এবং তার ছেলে মানিক হোসেন পাখিভ্যানযোগে (ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা) নিজ বাড়ি থেকে জীবননগরে সাপ্তাহিক হাটে যাচ্ছিলেন। তারা সাড়ে ৮ টার দিকে পাথিলা কৃষি ফার্মের নারকেল বাগানের সামনে পৌঁছুলে বিপরীত দিক থেকে আসা দ্রুতগামী একটি কাভার্ডভ্যান তাদেরকে ধাক্কা দেয়।

 

এতে পাখিভ্যানের উপর থেকে রাস্তার উপর ছিটকে পড়ে ছেলে মানিক হোসেন ঘটনাস্থলেই মারা যায় এবং দুর্ঘটনায় বাবা বাবলুর রহমান গুরুতর আহত হন। এসময় স্থানীয়রা মুমূর্ষু অবস্থায় বাবলুর রহমানকে উদ্ধার করে জীবননগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স নেয়।এখানে তার শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে পরবর্তীতে তাকে যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেয়া হয়েছে। খবর পেয়ে জীবননগর থানা পুলিশ এবং ফায়ার সার্ভিসের সদস্যরা ঘটনাস্থল থেকে নিহত মানিক হোসেনের লাশ উদ্ধার করে জীবননগর থানায় নিয়েছে।

জীবননগর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা  মো. আব্দুল খালেক জানান, সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত মানিক হোসেনের লাশ উদ্ধার করে জীবননগর থানায় নেয়া হয়েছে। এছাড়া বাবলুর রহমানকে উন্নত চিকিৎসার জন্য যশোর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।