চুয়াডাঙ্গায় ১২টি স্বর্ণের বারসহ চোরাকারবারি আটক

চুয়াডাঙ্গার জীবননগরে চোরাচালন বিরোধী অভিযান চালিয়ে এক কেজি ৩৯৭ গ্রাম স্বর্ণসহ এক চোরাকারবারিকে আটক করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)।

 

সোমবার (২৯ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৬টার দিকে জীবননগর উপজেলার মেদিনীপুর গ্রামে অভিযান চালিয়ে ওই স্বর্ণসহ শাহাবুল ইসলাম নামে এক চোরাকারবারিকে আটক করে বিজিবি।

 

আটক শাহাবুল ইসলাম (৪৪) জীবননগর উপজেলার মেদিনীপুর গ্রামের আলী আহম্মদের ছেলে। জব্দ স্বর্ণসহ শাহাবুলকে জীবননগর থানায় সোপর্দ করার কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

বিজিবির মহেশপুর-৫৮ ব্যাটালিয়নের সহকারী পরিচালক মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম খান প্রেস বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে বিষয়টি গণমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, জব্দ স্বর্ণের আনুমানিক বাজারমূল্য ৮৬ লাখ টাকা।

 

ওই প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে, মহেশপুর-৫৮ ব্যাটালিয়নের অধিনস্ত মেদিনীপুর বিওপির নায়েক নজরুল ইসলামের নেতৃত্বে চার সদস্য বিশিষ্ট একটি টহল দল জীবননগর উপজেলার মেদিনীপুর গ্রামের খালপাড়া ব্রিজে অভিযান চালান। এ সময় শাহাবুল ইসলাম কৌশলে মোটরসাইকেলযোগে পালানোর চেষ্টা করলে বিজিবি সদস্যরা তাকে আটক করেন। পরবর্তীতে শাহাবুল ইসলামের শার্টের পকেট ও প্যান্টের দুই পকেটে অভিনব কায়দায় লুকানো ১২টি স্বর্ণের বার উদ্ধার করা হয়।

 

মহেশপুর-৫৮ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মো. শাহীন আজাদ (বিপিএম, পিপিএম, পিএসসি, জি+) জানান, আটক শাহাবুল ইসলামসহ পলাতক ওয়াসিম মিয়া (৩৫) ও রাশেদ আলীর (৩০) বিরুদ্ধে জীবননগর থানায় মামলা দায়েরের কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।