দামুড়হুদার ভুট্টাক্ষেত থেকে দুই বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপ‌জেলার দর্শনা থানায় নিখোঁজের পর ভুট্টাক্ষেত থেকে দুই বৃদ্ধের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। সোমবার সকালে উপজেলার দর্শনা পরানপুর গ্রামের বেতে গাড়ি ও ঘরাভাঙ্গা বেড়ার মাঠ থেকে লাশ দুটি উদ্ধার করা হয়।

 

নিহতরা হলেন- একই উপজেলার পারকৃষ্ণপুর-মদনা ইউনিয়নের সাড়াবাড়িয়া গ্রামের ইদ্রিস আলীর ছেলে শওকত আলী সকো ও দর্শনা পৌর এলাকার পরানপুর গ্রামের মাঝেরপাড়ার গোলাম জোয়ার্দ্দারের ছেলে হাফিজুর রহমান হাফিজ।

 

পরিবারের সদস্যরা জানান, শওকত আলী (সকো) বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ছিলেন। শনিবার সকালে বাড়ি থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হন তিনি। অনেক খোঁজাখুঁজির পরও তাকে পাওয়া যায়নি।

 

এদিকে হাফিজুর রহমান রোববার দুপুরে ঘাস কাটার উদ্দেশে বাড়ি থেকে বের হন। বাড়ি না ফেরায় খোঁজাখুঁজি করেও তাকে পাওয়া যায়নি।

 

স্থানীয়রা জানায়, সোমবার সকালে ভুট্টাক্ষেতে কাজ করার সময় দুজনের লাশ দেখতে পেয়ে পুলিশকে খবর দেওয়া হয়। শওকত আলীর লাশের পাশে একটি বিষের বোতল পাওয়া গেছে আর হাফিজুর রহমানের মুখে ধারালো কিছুর আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে লাশ দুটি উদ্ধার করে।

 

দর্শনা থানার ওসি এএইচএম লুৎফুল কবীর জানান, পরানপুর গ্রামে আধা কিলোমিটারের মধ্যে ভুট্টাক্ষেতের ভেতর থেকে দুটি লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। একজনের পাশে বিষের বোতল ছিল। অপরজনের মুখে ধারালো অস্ত্রের আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে। লাশ দুটি ময়নাতদন্তের জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় আইনি ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন।