পুলিশ কনস্টেবল থেকে প্রশাসন ক্যাডার

পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকরিতে থাকা অবস্থায় বিসিএস প্রশাসন ক্যাডারে সুপারিশপ্রাপ্ত হয়েছেন হাকিম উদ্দিন নামে এক যুবক। বৃহস্পতিবার (৩১ মার্চ) রাতে মুঠোফোনে ঢাকা পোস্টকে এই তথ্য নিশ্চিত করেন হাকিম উদ্দিন নিজেই। গত বুধবার ৪০তম বিসিএসের ফল বের হয়। সেখানে তিনি প্রশাসন ক্যাডারে মেধাতালিকায় ৬৭তম হন।

 

হাকিম উদ্দিন নরসিংদীর রায়পুরা উপজেলার শ্রীনগর ইউনিয়নের সায়দাবাদ গ্রামের সিরাজ মিয়ার পঞ্চম সন্তান।

 

জানা যায়, ২০১০ সালে সায়দাবাদ উচ্চ বিদ্যালয় থেকে মাধ্যমিক পাস করেন হাকিম উদ্দিন। তারপর রায়পুরা কলেজ থেকে ২০১২ সালে উচ্চ মাধ্যমিক পাস করে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় অধিভুক্ত নরসিংদী সরকারি কলেজের রাষ্ট্রবিজ্ঞান বিভাগে ২০১২-১৩ সেশনে ভর্তি হন। ভর্তির কিছুদিন পরই পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকরি হয় তার। ২০১৩ সালে পুলিশে যোগদান করে প্রথম ১ বছর গাজিপুর ইন্ডাস্ট্রিয়াল পুলিশে কাজ করে বদলি হয় ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে। সেখানে থাকা অবস্থায়ই নরসিংদী সরকারি কলেজ থেকে ২০১৬ সালে অনার্স শেষ করেন। তারপর আর মাস্টার্স করেননি তিনি। এরপর, ২০১৮ সালে ৪০তম বিসিএস এ আবেদন করেন এবং প্রথমবারের মতো বিসিএস প্রিলিমিনারি টেস্ট দেন। সেখানে কৃতকার্য হওয়ার পর পর্যায়ক্রমে রিটেন ও ভাইভাতে অংশ নেন। সবশেষ, চলতি বছরের ৩০ মার্চ ৪০ তম বিসিএসের রেজাল্টে প্রশাসন ক্যাডারের মেধাতালিকায় ৬৭তম হিসেবে জায়গা করে নেন এই যুবক।

 

হাকিম উদ্দিন বলেন, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশে (ডিএমপি) কাজের চাপ প্রচুর। সারাদিন কাজ করে বিশ্রামের সময় পড়াশোনা করতাম। যখন অনার্স চতুর্থ বর্ষ শেষদিকে তখন মাথায় ভালো মানের একটা চাকরির পোকা ঢুকে। নূন্যতম ২য় শ্রেণির একটা চাকরির চাহিদা ছিল। এই চিন্তা থেকেই পুলিশ কনস্টেবল পদে চাকরির পাশাপাশি পড়াশোনা করতে থাকি ভালো একটা চাকরির আশায়। এক্ষেত্রে আমার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা আমাকে সাহায্য করেছেন। প্রস্তুতি ভালো না থাকায় ৪০তম এর আগে আবেদন করিনি। যখন আমার মনে হয়েছে আমি প্রতিযোগিতা করতে পারব তখন আবেদন করি। ৪০তম তে প্রথমবারের মতো বিসিএস পরীক্ষা দেই এবং সেখানেই ৬৭ তম হই প্রশাসন ক্যাডারে।