যশোরে আপন চাচীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে যুবক আটক

যশোরে আপন চাচীকে (৩৬) ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে দায়েরকরা মামলায় সোহেল খান (২২) নামে এক যুবককে আটক করেছে যশোরের বসুন্দিয়া ক্যাম্পের পুলিশ।

 

সোহেল খান যশোর সদর উপজেলার কেফায়েত নগর গ্রামের আক্তার হোসেন খানের ছেলে। ওই নারী যশোর কোতয়ালী থানায় দিয়ের করা মামলায় বলেছেন, অভিযুক্ত সোহেল তার আপন বড় ভাসুরের ছেলে।

 

তার স্বামীর বাড়ির পাশে একটি চায়ের দোকান আছে। গত শনিবার রাত ১০টার দিকে তার স্বামী ও বড় ছেলে দোকানে ছিলো। তার প্রশ্রাবের সমস্যরা কারণে ঘন ঘন টয়লেটে যেতে হয়।

 

সে কারণে তিনি ঘরের দরজা খুলে শুয়ে ছিলেন। রাত ১০টার দিকে তিনি টয়লেটে যাওয়ার পথে দেখেন সোহেল বাড়ির মধ্যে দাড়িয়ে আছে। তিনি ঘরে ঢুকে খাটের উপর ছোট ছেলের সাথে শুয়ে পড়েন।

 

কিছু সময় পর সোহেল ঘরের মধ্যে ঢোকে এবং তাকে জড়িয়ে ধরে। এরপর পড়নের কাপড় খুলে ধর্ষণের চেষ্টা করে। সে সময় তিনি চিৎকার দিলে আশেপাশের লোকজন তার স্বামী,

 

ছেলে ও আরেক ভাসুর এগিয়ে আসলে সোহেলকে পালিয়ে যেতে দেখে। পরে তিনি থানায় অভিযোগ দিলে রোববার থানায় তা মামলা হিসাবে রেকর্ড হয়।

 

বসুন্দিয়া ক্যাম্পের ইনচার্জ এসআই শেখ মো. জাকির হোসেন জানিয়েছেন, ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে একটি মামলা দায়ের হওয়ার পর কেফায়েত নগর গ্রামে অভিযান চালিয়ে রোববার সকাল ১০টার দিকে সোহেল খানকে আটক করা হয়। পরে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে।