ভারত ও যুক্তরাষ্ট্র তালেবান ইস্যুতে পাকিস্তানের ওপর নজর রাখছে

তালেবান ইস্যুতে পাকিস্তানের প্রতিটি পদক্ষেপের ওপর যুক্তরাষ্ট্র ও তার দেশ নজর রাখছে বলে জানিয়েছেন ভারতের পররাষ্ট্রসচিব হর্ষ বর্ধন শ্রিংলা।

জানা গেছে, আফগানিস্তানে তালেবান সরকার গঠনের লক্ষ্যে শনিবার কাবুলে পৌঁছেছেন পাক গোয়েন্দা সংস্থা আইএসআইয়ের প্রধান। আইএসআই প্রধানের কাবুল যাত্রার একদিন আগে শুক্রবার মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে গিয়ে সাংবাদিকদের এ কথা বলেন শ্রিংলা।

তিনি বলেন, পাকিস্তান হলো আফগানিস্তানের প্রতিবেশী দেশ। তারা তালেবানকে সমর্থন করেছে। অনেক ক্ষেত্রে পাকিস্তান তাদের সাহায্য করেছে।

শ্রিংলা বলেন, তালেবানের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক সীমাবদ্ধ। আমাদের মধ্যে গভীরে গিয়ে কোনো কথাবার্তা হয়নি। তবে এখনও পর্যন্ত যেটুকু আলোচনা হয়েছে, তাতে তালেবান ইঙ্গিত দিয়েছে যে, তারা যুক্তিসঙ্গতভাবে আমাদের উদ্বেগের বিষয়টি বিচার-বিবেচনা করবে।

সাংবাদিকদের ভারতের পররাষ্ট্রসচিব আরও বলেন, আমাদের মতো যুক্তরাষ্ট্র খুব ভালো করে খেয়াল রাখছে আফগানিস্তানের পরিস্থিতির ওপর। পাকিস্তান এখন কী করে, সে বিষয়ে কড়া নজরদারি চালাতে হবে। বর্তমানে অপেক্ষা করা আর নজর রাখার নীতি গ্রহণ করেছে ভারত। একই নীতি নিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র।

‘কিন্তু তার মানে এই নয় যে, কিছু করা হবে না। প্রাথমিক স্তরে অবস্থা যে কোনো মুহূর্তে বদলাতে পারে। তাই এখন কী কী পরিবর্তন হচ্ছে, সেদিকে খেয়াল রাখা দরকার। জনসমক্ষে তালেবানের দেওয়া প্রতিশ্রুতি সত্যি সত্যি মানা হচ্ছে কিনা আর কীভাবে তা কার্যকর করা হচ্ছে, সেটা দেখতে হবে।’ সূত্র: হিন্দুস্তান টাইমস।