বিএসএফের স্থাপনা নির্মাণকাজ বন্ধ করে দিয়েছে বিজিবি

ভারত-বাংলাদেশ সীমান্ত (ফাইল ছবি)

সাতক্ষীরার ভোমরা সীমান্তের বিপরীতে ভারতের ঘোজাডাঙ্গায় বিএসএফের স্থাপনা নির্মাণকাজ বন্ধ করে দিয়েছে বিজিবি। আন্তর্জাতিক সীমানা আইন লঙ্ঘন করে শূন্যরেখা থেকে মাত্র ২৫ গজ দূরে চৌকি সদৃশ স্থাপনা নির্মাণ করছিল ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী। প্রতিবাদের পরও নির্মাণকাজ বন্ধ না করায় বিজিবির কড়া প্রতিক্রিয়ায় সমস্ত মালামাল সরিয়ে নিতে বাধ্য হয় তারা।

সাতক্ষীরার ভোমরা বিজিবির বিওপি কমান্ডার সুবেদার হারুণ-অর-রশিদ জানান, শনিবার (১১ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯টার দিকে শূন্যরেখার কাছেই নির্মাণ করা হচ্ছিল একটি স্থাপনা। স্থাপনাটি বিএসএফের প্রহরা চৌকি টাইপের হবে। যদিও বৈঠকে তারা জানিয়েছে, স্থানীয়রা ফুটবল খেলার মাঠের পাশে গাড়ি পার্কিংয়ের স্থাপনা নির্মাণ করছিল।

তিনি আরও বলেন, ‘ঘোজাডাঙ্গা বিএসএফের এসি শহিদুল হকের সঙ্গে তিনি বৈঠক করেছেন। সকাল ১১টার বৈঠকে এসি শহিদুল তাকে আশ্বস্ত করেছিলেন, দ্রুতই তারা স্থাপনা সরিয়ে নেবেন। তবে তা না নেওয়ায় আমরা অস্ত্র তাক করে পজিশনে চলে যাই। পরবর্তী সময়ে দুপুর ১টার দিকে তারা স্থাপনা ভেঙে সব মালামাল সরিয়ে নেয়।’

সাতক্ষীরা ৩৩ বিজিবির অধিনায়ক লে. কর্নেল আল মাহমুদ বলেন, ‘সকাল ৯টার দিকে তারা নির্মাণ কাজ শুরু করে। জানতে পেরে আমরা সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থায় থাকি। পরে কোম্পানি কমান্ডার পর্যায়ে যোগাযোগ করলে বিজিবিকে জানানো হয়, খেলার মাঠে পার্কিং স্থাপনা নির্মাণ করছে স্থানীয়রা। তবে ১১টার মধ্যে স্থাপনা সরিয়ে নেওয়ার কথা বললেও তারা কথা রাখেনি। পরে ব্যাটালিয়ন পর্যায়ে কড়া প্রতিক্রিয়া জানানোর পর তারা নির্মাণ কাজ বন্ধ করে দেয়। স্থাপনার সমগ্র মালামাল সরিয়ে ফেলতে বাধ্য হয় তারা।’