কুষ্টিয়ায় প্রতিপক্ষের গুলিতে যুবক নিহত

কুষ্টিয়া সদরে প্রতিপক্ষের গুলিতে রাজু আহম্মেদ (৩৭) নামে এক যুবক নিহত হয়েছেন। বৃহস্পতিবার (২৩ সেপ্টেম্বর) রাত দেড়টার দিকে সদর উপজেলার আলামপুর ইউনিয়নের দরবেশপুর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।  

রাজু আহম্মেদ দরবেশপুর গ্রামের মুন্তা মন্ডলের ছেলে। তিনি বেসরকারি একটি প্রতিষ্ঠানে চাকরি করতেন।

কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সাব্বিরুল আলম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন। পুলিশ তার মরদেহ উদ্ধার করে মর্গে পাঠিয়েছে। পূর্ব শত্রুতার জেরে এ হত্যাকাণ্ড হয়েছে বলে জানিয়েছেন পুলিশ ও নিহতের পরিবার।

পুলিশ, নিহতের পরিবার ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সদর উপজেলার দরবেশপুর গ্রামে আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দীর্ঘ কয়েক মাস দুই গ্রুপের মধ্যে কোন্দল চলে আসছিল। তারই ধারাবাহিকতায় এ ঘটনা ঘটল।

নিহতের পরিবারের সদস্যরা বলেন, প্রতিদিনের মতো রাজু বাসায় ঘুমিয়ে ছিল। বৃহস্পতিবার রাত দেড়টার দিকে হঠাৎ করে প্রতিপক্ষের লোকজন পুরো বাড়ি ঘিরে ফেলে। রাজুকে তার ঘর থেকে বের করে গুলি করে। আহত রাজুকে উদ্ধার করে কুষ্টিয়া ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। পরে তার মরদেহ উদ্ধার করে হাসপাতালের মর্গে পাঠায় পুলিশ।

আলামপুর ইউনিয়ন পরিষদের এক ইউপি সদস্য নাম প্রকাশ না করার শর্তে জানান, দরবেশপুর গ্রামের দুই পক্ষের পাল্টাপাল্টি বিরোধের জেরে এই হত্যাকাণ্ড ঘটেছে। বেশ আগে থেকেই দুই পক্ষের মধ্যে কোন্দল চলছিল।