ভাইকে ফাঁসাতে স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যা

জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে বগুড়ার ধনুটে ছোট ভাইকে ফাঁসাতে স্ত্রী স্বপ্ন খাতুনকে (৩৬) কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামীর বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় নিহতের স্বামী বাহেচ আলীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। গতকাল শুক্রবার (২ অক্টোবর) দিবাগত রাত তিনটার দিকে উপজেলার চালাপাড়া গ্রামে এ হত্যাকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

গ্রেফতার বাহেচ ও বেলাল চালাপাড়া গ্রামের মৃত মতরাজ আলীর ছেলে। বাহেচ পেশায় একজন চা বিক্রেতা। নিজ ছোট ভাই বেলালের সঙ্গে জমি সংক্রান্ত বিরোধ চলছে তার।

শুক্রবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে স্ত্রী স্বপ্নাকে চায়ের দোকানে ডেকে নেন বাহেচ আলী। স্বপ্না দোকানে আসা মাত্রই তাকে ধারাল অস্ত্র দিয়ে আঘাত করতে থাকেন তিনি। একপর্যায়ে স্বপ্নার মৃত্যু নিশ্চিত করে বাড়িতে ফিরে বাহেচ চিৎকার শুরু করেন।বলতে থাকেন তার ভাই বেলাল স্বপ্নাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে। ওই সময় আশেপাশের লোকজন ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন। তারা স্বপ্নাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেন। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শনে আসে। পরে আশেপাশের লোকজনের সঙ্গে কথা বলে শনিবার ভোরে স্বপ্নার স্বামী বাহেচকে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে যায় পুলিশ।

এ বিষয়ে ধুনট থানা পুলিশের অফিসার ইনচার্জ (ওসি) কৃপা সিন্ধু বালা বলেন, জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে নিজ ভাইকে ফাঁসাতে বাহেচ স্বপ্নাকে হত্যা করেছে। মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল (শজিমেক) হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।