১ বছরের সাজা থেকে বাঁচতে ৮ বছর পলাতক

২০১৩ সালে চেক প্রতারণা মামলায় এক বছরের সাজা হয় জয়নুল আবেদীন জনি ওরফে তৌফিকের (৩৯)। সেই সাজা থেকে বাঁচতে তিনি ৮ বছর পলাতক ছিলেন। অবশেষে ৮ বছর পর পুলিশের হাতে ধরা পড়লেন তিনি। আজ রোববার চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশ ঢাকার বনানী এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করেন।

 

গ্রেফতার তৌফিক চুয়াডাঙ্গা জেলার সদর উপজেলার বেলগাছি গ্রামের মাদ্রাসা পাড়ার মো. নুরুল হোসেনের ছেলে।চুয়াডাঙ্গা সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা  মোহাম্মদ মহসীন বলেন, তৌফিক ২০১০ সালে ঢাকায় পুরাতন গাড়ির ব্যবসা শুরু করেন। ২০১২ তে আবার ঋণ নিয়ে সিলেটে ট্রান্সপোর্ট ও মোটর পার্টসের ব্যবসা শুরু করেন।

 

২০১৩ সালে তিনি সর্বমোট প্রায় আড়াই কোটি টাকার দেনা হয়ে পড়েন। এরপর ২০১৩ সাল থেকে বিভিন্ন সময় ঢাকা ও চুয়াডাঙ্গা আদালতে মামলা দায়ের করা হয়।

 

সেই বছরই তার সাজা হয়। এরপর থেকেই তিনি পলাতক ছিলেন। আজ ঢাকার বনানী থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। তার বিরুদ্ধে ৬ টি সাজা পরোয়ানাসহ মোট ১০ টি গ্রেফতার পরোয়ানা রয়েছে বলে জানান ওসি মহসীন।