টি-২০ বিশ্বকাপে বোলারদের সিংহাসনে সাকিব

ফাইল ছবি

যে টার্গেট নিয়ে এবার টি-২০ মিশন শুরু করেছেন সাকিব, একটা একটা করে তা পূর্ণ করছেন সাকিব। স্কটল্যান্ডের বিপক্ষে প্রথম ম্যাচে মালিঙ্গাকে (১০৭ উইকেট) টপকে সংক্ষিপ্ত সংস্করণের ক্রিকেটে সর্বাধিক উইেকেটের বোলারদের সিংহাসনে আরোহন করেছেন।

 

বিশ্বের ২৩ তম বোলার হিসেবে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে ৬০০ উইকেটের মাইলস্টোন পূর্ণ করেছেন। ১২ হাজার রানের পাশে ৬০০ উইকেটে একমাত্র ইতিহাসও সেদিনই করেছেন রচনা।
টি-২০ বিশ্বকাপে এসে রেকর্ডের নেশার পেছনে ভালই ছুটছেন সাকিব। ২৫ ম্যাচে ৩০ উইকেট নিয়ে ৫ম শীর্ষে থেকে শুরু করেছিলেন সাকিব টি-২০ বিশ্বকাপ। ওমর গুল (৩৫), অজন্থা মেন্ডিজ (৩৫), সাইদ আজমল (৩৬), মালিঙ্গা (৩৮) এবং আফ্রিদির (৩৯) পেছনে ছুটতে থাকা সাকিব এই আসরে ১০টি উইকেট পেলে টি-২০ বিশ্বকাপের রেকর্ডসবুকে বোলারদের আর একটি সিংহাসনে বসবেন।

 

সে লক্ষ্যটা এখন পূরণের খুবই কাছাকাছি। বৃহস্পতিবার মাস্কটে বাউকে শিকার করে ছুঁয়েছেন টি-২০ বিশ্বকাপে মালিঙ্গাকে (৩১ ম্যাচে ৩৮ উইকেট)। নিজের শেষ ওভারে নামিবিয়ার হিরি হিরিকে উইকেটের পেছনে ক্যাচ দিতে বাধ্য করে টি-২০ বিশ্বকাপে সর্বাধিক উইকেটে শিকারী পাকিস্তান লিজেন্ডারি শহীদ আফ্রিদিকে (৩৪ ম্যাচে ৩৯ উইকেট) ছুঁয়েছেন বাঁ হাতি স্পিনার সাকিব আল হাসান (২৮ ম্যাচে ৩৯ উইকেট ! টি-২০ বিশ্বকাপে শুধু বোলারদের এভারেস্টেই পা দেননি, উইকেট পিছু তার গড় (১৬.৪১), নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী শহীদ আফ্রিদি (২৩.২৫) এবং লাসিথ মালিঙ্গার (২০.১৭) চেয়ে বেটার।

 

টি-২০ বিশ্বকাপে তৃতীয়বারের মতো ইনিংসে ৪ উইকেটের দেখা পেয়েছেন সাকিব। ২০০৭ সালে জোহানেবার্গে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ৪-০-৩৪-৪, ২০১৬ টি-২০ বিশ্বকাপে ধর্মশালায় ওমানের বিপক্ষে ৩-০-১৫-৪ এর পর মাস্কটে পাপুয়া নিউগিনির বিপক্ষে ৪-০-৯-৪! টি-২০ বিশ্বকাপে নিজের সেরা বোলিং ইনিংসটি অবশ্য থাকছে মোস্তাফিজের পেছনে। ২০১৬ টি-২০ বিশ্বকাপে কলকাতার ইডেন গার্ডেনসে নিউ জিল্যান্ডের বিপক্ষে মোস্তাফিজের বোলিংকে (৪-০-২২-৫) রাখতে হচ্ছে সবার উপরে।