চুল পড়া কমাতে ব্যাবহার করুন এই টোটকা

চুল পড়া রোধের দাবি করে এমন সব পণ্য ব্যবহার করেও একই সমস্যায় পড়তে পারি। তবে, সৌভাগ্যক্রমে এ সমস্যার এমন কিছু জাদুকরী ঘরোয়া প্রতিকার রয়েছে যা আপনি রাসায়নিক পার্শ্ব প্রতিক্রিয়ার ভয় ছাড়াই ব্যবহার করতে পারেন। সেসবের মধ্যে একটি চিকিৎসা হল পেয়ারা পাতার ব্যবহার। পেয়ারাতে রয়েছে ভিটামিন সি, ফাইবার, পটাসিয়াম এবং লাইকোপিনের মতো গুরুত্বপূর্ণ পুুষ্টি উপাদান। আর, পেয়ারার পাতায় রয়েছে অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি, অ্যান্টিঅক্সিড্যান্ট, অ্যানালজেসিক এবং অ্যান্টিব্যাকটেরিয়াসহ নিরাময়ের বৈশিষ্ট্য। পেয়ারার পাতা চুল পড়া রোধে এবং চুলের বৃদ্ধিতে অত্যন্ত কার্যকর এবং মাথার ত্বক সুরক্ষায় অবদান রাখে। পেয়ারা পাতার ব্যবহার চুলকে নরম ও আরো সুন্দর করে তুলতে পারে। তবে যারা চুল পড়া সমস্যায় ভুগছেন, পেয়ারা পাতা ব্যবহারে করে সমস্যা থেকে পরিত্রাণ পেতে পারেন।

চুল পড়া কমাতে ব্যাবহার করুন এই টোটকা

চুল পড়া নাকি স্বাভাবিক একটি ব্যাপার, এমনটাই বিশেষজ্ঞদের মত। তবে তা দিনে ১০০ টা পর্যন্ত। এর চেয়ে বেশিও হলে তা চিন্তার বিষয়। ঘন ঘন এমন চুল ওঠার ফলে চুলের গোছা পাতলা হয়ে যায়। মাথার তালুতে জায়গায় জায়গায় ফাঁকা হয়ে যেতে থাকে। 

অবহেলা এবং অযত্নের এমনটা হয়ে থাকে। এছাড়াও দূষণ, খাবারের সমস্যা, ঘুম কম হওয়া, দুশ্চিন্তা তো নিত্যদিনের সঙ্গী। এসব কারণেই মূলত অতিরিক্ত চুল পড়ার সমস্যা হয়ে থাকে। চুল ঝরে যাওয়া আসলে একেবারে প্রাকৃতিক একটি প্রক্রিয়া। চুল ঝরে যাবে এবং আবার নতুন চুল গজাবে, এটাই স্বাভাবিক। তবে অনেকেরই চুল খুব বেশি ঝরে যাচ্ছে। 

চুল পড়া কমাতে নিয়মিত চুলে তেল ব্যবহার করুন। সেই সঙ্গে ঘরোয়া একটি প্যাক ব্যবহার করতে পারেন। এতে চুল পড়া বন্ধের পাশাপাশি চুল সুন্দর ও মসৃণ হতে সহায়তা করবে। চুল পড়া বন্ধে পেয়ারা পাতার কার্যকারিতার কথা আমরা সবাই কমবেশি জানি। এটি চুল পড়া বন্ধে খুবই কার্যকরী। তাহলে চলুন জেনে নেয়া যাক কীভাবে ব্যবহার করবেন পেয়ারা পাতা-

যা যা লাগবে
এক মুঠো পেয়ারা পাতা, পানি এক লিটার।  

যেভাবে তৈরি করবেন 
একটি পাত্রে পানি ফুটতে দিন। পানি ফুটে আসা পর্যন্ত অপেক্ষা করুন। ফুটে এলে এতে পেয়ারা পাতা দিয়ে দিন। পেয়ারা পাতা দিয়ে ২০ মিনিট জ্বাল দিন। ২০ মিনিট পর নামিয়ে ফেলুন। 

যেভাবে ব্যবহার করবেন
প্রথমে চুল ভালো করে শ্যাম্পু করে নিন। তবে কন্ডিশনার ব্যবহার করা থেকে বিরত থাকুন। চুল কিছুটা শুকিয়ে এলে চুল বেণী করে তারপর পেয়ারা পাতার পানি ঢালুন। পানি মাথার তালুতে কমপক্ষে ১০ মিনিট ম্যাসাজ করুন এবং ২ ঘণ্টা রেখে তারপর কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

কতদিন পর পর ব্যবহার করবেন
যদি চুল পড়া সমস্যা অনেক বেশি থাকে। তবে সপ্তাহে তিনবার ব্যবহার করুন এটি চুল পড়া বন্ধ করবে। আর যদি চুল শাইনি সিল্কি করে তুলতে চান তবে সপ্তাহে দুইবার এটি ব্যবহার করুন।