মোংলায় গরু ব্যবসায়ীকে পেটালেন যুবলীগ নেতা!

তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মোংলায় এক গরু ব্যবসায়ী ও তার শ্যালককে বেধড়ক মারপিট করে গুরুতর আহত করেছেন এক যুবলীগ নেতা। এ ঘটনায় থানায় একটি অভিযোগ দায়ের হয়েছে। অভিযোগের প্রেক্ষিতে জানা যায়, উপজেলার চাঁদপাই ইউনিয়নের মালগাজী গ্রামের রাশেদ মল্লিকের ছেলে মনির মল্লিকের কাছে পাওনা ১০০ টাকা দিতে দেরি হওয়ায় তাকে চাঁদপাই ইউনিয়ন যুবলীগের সহ-সভাপতি মোঃ শাহালম ও তার ভাই মোঃ মাহালমসহ স্থানীয় কয়েকজন মিলে বেধড়ক মারপিট করে।

মোংলায় গরু ব্যবসায়ীকে পেটালেন যুবলীগ নেতা!
এ সময় তার ডাক চিৎকারে স্থানীয় গরু ব্যবসায়ী ও মারপিটের শিকার মনির মল্লিকের দুলা ভাই মোঃ খোকন এগিয়ে আসলে তাকেও মারধর করা হয়। এ ঘটনায় গরু ব্যবসায়ী খোকন বাদী হয়ে মোংলা থানায় যুবলীগ নেতা শাহালমসহ চারজনের নামে অভিযোগ দিয়েছেন। এ ব্যাপারে থানার ওসি মোঃ ইকবাল বাহার চৌধুরী বলেন, অভিযোগের তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 
তবে এ ব্যাপারে অভিযুক্ত শাহালমের বক্তব্য জানতে তাকে ফোন করা হলে সাংবাদিক পরিচয় পেয়ে তিনি লাইন কেটে দেন। এরপর একাধিকবারও চেষ্টা করেও তার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি। 
এদিকে নাম প্রকাশ না করার শর্তে মালগাজী এলাকার একাধিক ব্যক্তি জানান, চাঁদপাই ইউনিয়ন যুবলীগের সহ-সভাপতি মোঃ শাহালমের বিরুদ্ধে মাদকের ব্যবসাসহ এলাকায় বিশৃঙ্খলা সৃষ্টির অভিযোগ রয়েছে। তিনি তার এলাকায় কিছুদিন আগে বিয়ে ছাড়াই এক যুবতী অন্তঃস্বত্তা হলে ক্ষমতা ও মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে জোরপূর্বক ভয়ভীতি দেখিয়ে স্থানীয় শিমুল নামের এক যুবকের সাথে বিয়ে দিয়ে শালিস মিমাংসা করেন। শাহালম তার এসব কুকীর্তি ধামাচাপা দিতে একেক সময় স্থানীয় আ’লীগের কিছু কিছু নেতার সংস্পর্শে মিশে শেল্টার নিয়ে থাকেন বলেও জানান এলাকাবাসী। 
ইউনিয়ন যুবলীগের নেতা হওয়ার দাপটে গত দুই বছর আগে স্থানীয় কোরবান আলী মাদ্রাসায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত হয়ে শিক্ষার্থীদের মাঝে নতুন বই বিতরণ করে বিতর্কিত ও সমালোচিত হন এই শাহালম।